Home » পশ্চিমবঙ্গ » জঙ্গলমহলে মাওবাদীদের হাতে খুন হওয়া পরিবার গুলির ক্ষতিপূরণের দাবিতে স্মারকলিপি

জঙ্গলমহলে মাওবাদীদের হাতে খুন হওয়া পরিবার গুলির ক্ষতিপূরণের দাবিতে স্মারকলিপি

ঝাড়গ্রাম: জঙ্গলমহলে মাওবাদীদের হাতে খুন, অপহৃত ও আহতদের অনেক পরিবারকে কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ক্ষতিপূরণ পেলেও জঙ্গলমহলের অনেক পরিবার এখনো ব্রাত্য থেকে গিয়েছে।বৃহস্পতিবার সেই সমস্ত পরিবার গুলি ক্ষতিপূরণ ও চাকুরীর দাবিতে নতুন করে আন্দোলন শুরু করল ঝাড়্গ্রাম জেলার লালগড় থেকে।

যে লালগড়ের থেকে এক সময় মাওবাদীরা অবরোধ আন্দোলন করে গোটা জঙ্গলমহল স্তব্ধ করেছিল। এবার সেই মাওবাদীদের হাতে নিহত পরিবারের সদস্যরা আন্দোলন শুরু করল। এদিন লালগড় তথা বিনপুর এক ব্লকের বিভিন্ন গ্রামের শহিদ পরিবারের প্রায় দুশো সদস্য লালগড় বাজার এলাকায় তাদের দাবি নিয়ে এক পদযাত্রা করেন। পদ যাত্রার পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে খোলা দাবি পত্র সংবাদমাধ্যমের হাতে তুলে দেন। পরে তাদের দাবি গুলি বিডিওর কাছে ডেপুটেশন আকারে জমা দেন।মাওবাদীদের হাতে খুন হওয়া পরিবারের গুলির দাবি তাদের পরিবার গুলিকে যদি সরকারের পক্ষ থেকে যদি ক্ষতিপূরণ না দেওয়া হয় তা হলে আগামী দিনে বৃহত্তর আন্দোলনের পথে যাবেন।
এদিনের পর জঙ্গলমহলের চার জেলা ঝাড়গ্রাম,বাঁকুড়া, পশ্চিম মেদিনীপুর, পুরুলিয়া যা জঙ্গলমহল নামে পরিচিত সেই জেলা গুলিতেও আন্দোলন ও গন স্মারক লিপি দেবেন। এবং আগামী দিনে নবান্ন এবং কেন্দ্রের কাছে দাবি পত্র দেবেন বলে সাফ জানিয়েদেন শহিদ ও নিখোঁজ পরিবার মঞ্চ। মঞ্চের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে বিনপুর এক ব্লকেই দু’হাজার সাত সাল থেকে মাওবাদীদের হাতে নিহত,অপহৃত,আহত হয়েছেন প্রায় একশো কুড়ি জন মানুষ। ঝাড়গ্রাম জেলায় সংখ্যাটি পাঁচশোর কাছাকাছি।মাওবাদীদের হাতে অপহৃত হয়ে বহু মানুষ এখনো নিখোঁজ আছেন।আহতরা পঙ্গু হয়ে জীবন কাটাচ্ছেন।মঞ্চের পক্ষ থেকে শুভঙ্কর মন্ডল দাবি করে বলেন, কেন্দ্রীয় সরকারকে দশ লক্ষ এবং রাজ্য সরকারকে পাঁচ লক্ষ টাকার ক্ষতিপূরণ দিতে হবে এবং শহিদ পরিবারের একজন সদস্যকে চাকরি দিতে হবে,মাওবাদীদের আক্রমণে শারীরিকভাবে অক্ষম ব্যক্তিদের সরকারি সাহায্য এবং চিকিৎসার সমস্ত খরচ বহন করতে হবে,মাওবাদী আক্রমনে নিখোঁজদের মৃত ঘোষনা করতে হবে সহ মোট ন দফা দাবি নিয়ে এদিন স্মারকলিপি দেন।

এই বিষয়ে লালগড়ের বিডিও জ্যোতিন্দ্রনাথ বৈরাগী বলেন মাওবাদীদের হাতে নিহত,নিখোঁজ পরিবারের সদস্যরা তাদের বিভিন্ন দাবি দাওয়া নিয়ে আমার কাছে এসেছিলেন। আমি তাদের তাদের কাছ থেকে স্মারকলিপি জমা নিয়েছি।বিষয়টি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে দেবো।

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

উলুবেড়িয়া উপনির্বাচনে বিজেপি প্রার্থীর নাম ঘোষণা নিয়ে ধন্দ

কলকাতা: উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনে বিজেপি প্রার্থীর নাম চূড়ান্ত ঘোষণা নিয়ে ধন্দ দেখা দিয়েছে৷ দলের ...